সোমবার, মে ২০, ২০২৪

আমতলীর গুলিশাখালী ইউনিয়নে জেলেরা চাল পেয়ে আনন্দে আত্মহারা!

আপডেট:

 

বরগুনার আমতলীতে শনিবার দুপুরে সামুদ্রিক মৎস্য আহরণে বিরত থাকা অভাবী জেলেদের মাঝে খাদ্যসহায়তার চাল বিতরণ করা হয়েছে। সরকার নির্ধারিত ৬৫ দিন মৎস্য আহরণে বিরত থাকা উপজেলার গুলিশাখালী ইউনিয়নের ১ হাজার ৬৪১ জন জেলেদের মাঝে খাদ্য সহায়তার প্রথম কিস্তির চাল জেলে প্রতি ৫৬ কেজি করে বিতরণ করা হয়।

বিজ্ঞাপন

জানা গেছে, ২৩ মে থেকে ২৬ জুলাই পর্যন্ত ৬৫ দিন সারাদেশে সামুদ্রিক মাছ আহরণ, পরিবহণ, মজুদ, বাজারজাতকরণ, ক্রয়-বিক্রয় ও বিনিময় নিষিদ্ধ করেছেন সরকার।
৫৬ কেজি চাল পেয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জন্য দোয়া করে জেলে লোকমান বলেন আল্লাহ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যেন আবার প্রধানমন্ত্রী হয়। আল্লাহ যেন হ্যার হায়াত বাড়াইয়া দেয়। আমি এই চাল দিয়া বউ মাইয়া পোলা ও মায়েরে নিয়া তিন বেলা খাইতে পারবো।

জেলে সামসু মিয়া, নুরু, মান্নান বলেন আমরা ৫৬ কেজি করে চাল পেয়েছি । এখন আমরা এ চাল দিয়ে পরিবার পরিজন নিয়ে তিন বেলা খেয়ে দেয়ে বাচতে পারবো।

বিজ্ঞাপন

গুলিশাখালী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট এইচ এম মনিরুল ইসলাম মনি বলেন, ২৩ মে থেকে ২৬ জুলাই পর্যন্ত ৬৫ দিন সামুদ্রিক মাছ ধরা থেকে বিরত অসহায় অভাবে থাকা জেলেদের অসহায়ত্ব দুর করার জন্য সরকার বিশেষ ভিজিএফ কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। ওই কর্মসূচির আওয়তায় ইউনিয়নের নিবন্ধিত ১৬৪১ জন জেলেদের মাঝে জন প্রতি ৫৬ কেজি চাল বিতরণ করা হয়েছে।

মোঃ ইমরান হোসাইন /আমতলী

 

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:

সর্বাধিক পঠিত