শনিবার, মে ২৫, ২০২৪

নয় বছর পর পাঁচবিবি পৌর স্বেচ্ছাসেবকলীগের সম্মেলন, দুই পদে ২৭ জন প্রার্থী

আপডেট:

জয়পুরহাট প্রতিনিধিঃ

জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে ৯ বছর পর আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সম্মেলনে নেতা হতে ২৭ জন প্রার্থী আবেদন করেছেন। আজ শনিবার স্থানীয় বারোয়ারী চত্বরে ৯ বছর সংগঠনের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সম্মেলনে সভাপতি পদে ১০ জন এবং সাধারণ সম্পাদক পদে ১৭ জন প্রার্থী তাদের জীবন বৃত্তান্ত জমা দিয়েছেন। প্রার্থীর সংখ্যা বেশি হওয়ায় সম্মেলন শেষে কারো নাম ঘোষণা করেননি দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতৃবৃন্দ।

বিজ্ঞাপন

জানা যায়, ২০১৪ সালের ২২ ডিসেম্বর পাঁচবিবি পৌর আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংগঠনের মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ায় কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক লীগের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ৯ বছর পর আজ পাঁচবিবি পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠত হয়। বেলা দুইটায় বারোয়ারী চত্বরে দলীয় ও জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে সম্মেলনের উম্বোধন করেন জয়পুরহাট জেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মো. গোলাম মোর্শেদ।

পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মো. আরিফ রব্বানী ইস্তির সভাপতিত্বে সম্মেলনে প্রধান অতিথী হিসেবে বক্তব্য রাখেন জয়পুরহাট সদর-পাঁচবিবি আসনের সংসদ সদস্য সামছুল আলম দুদু।

বিজ্ঞাপন

সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সম্পাদক ও সম্মেলনের দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা মাহমুদ রাজ্জাক অপু। সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক রমজান আলী সরদার, পাঁচবিবি উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু বকর সিদ্দিক মন্ডল, সাধারণ সম্পাদক মো. জিহাদ মন্ডলসহ জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ।

সম্মেলনের প্রথম অধিবেশন শেষে আগের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণার পর দ্বিতীয় অধিবেশনে সভাপতি সম্পাদক হতে আগ্রহী ২৭ জন নেতা তাদের জীবন বৃত্তান্ত জমা দেন কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতা মাহমুদ রাজ্জাক অপুর হাতে। এত সংখ্যক নেতা হতে আগ্রহী প্রার্থী হওয়ায় সম্মেলন স্থলে সাধারণ কর্মীরা বলে ওঠেন ‘নেতা হতে পারলেই লাভ বেশী’।

সম্মেলনে কেন্দ্রীয় নেতা অপু বলেন, সবার সিভি যাচাই-বাছাই শেষে স্থানীয় নেতৃবৃন্দের সঙ্গে আলোচনা করে কেন্দ্রীয় কমিটির মাধ্যমে কমিটির সভাপতি ও সম্পাদকের নাম ঘোষণা করা হবে।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:

সর্বাধিক পঠিত