শনিবার, মে ২৫, ২০২৪

ফরিদপুরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশিকুর রহমান চৌধুরীর ওপর হামলা; গাড়ি ভাঙ্চুর

আপডেট:

ফরিদপুরের মধুখালীতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. আশিকুর রহমান চৌধুরীর ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে।

আজ বৃহস্পতিবার (৪মে) দুপুরে উপজেলার ডুমাইন ইউনিয়নের নিশ্চিন্তপুর চরপাড়া এলাকায় এ হামলার ঘটনা ঘটে।

বিজ্ঞাপন

স্থানীয় একাধিক সূত্রে জানা যায়, ওই এলাকায় আশ্রয়ণ প্রকল্প নির্মাণ নিয়ে জায়গা-জমি সংক্রান্ত বিষয়ে স্থানীয়রা বিরোধিতা করে আসছিল। দুপুরের দিকে উপজেলার ডুমাইন ইউনিয়নের নিশ্চিন্তপুর চরপাড়া এলাকায় আশ্রয়ণ প্রকল্প নির্মাণ কাজের উদ্বোধনীতে যোগদান করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আশিকুর রহমান চৌধুরী। সে সময় স্থানীয়রা ওই স্থানে আশ্রয়ণ প্রকল্প নির্মাণ কাজে বাঁধা দেন এবং একপর্যায়ে লাঠিসোঁটা নিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার ওপর হামলা চালায়। এতে তিনি আহত হন।

ডুমাইন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. আসাদুজ্জামান তপন বলেন, আমি একটি সালিশি বৈঠকে ছিলাম ইউএনও স্যারের মোবাইল পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি সামাল দেওয়ার চেষ্টা করি। ততক্ষণে স্থানীয়রা তার ওপর হামলা চালিয়ে তাকে আহত করেন। গাড়িটি ভাঙচুর করা হয়েছে। এ সময় পুরুষদের চেয়ে মহিলাদের উপস্থিত বেশি ছিল। সে সময় ইউএনও স্যারের নাক দিয়ে রক্ত ঝড়তে দেখা যায়।

বিজ্ঞাপন

উপজেলা চেয়ারম্যান মো. শহিদুল ইসলাম বলেন, হামলার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যাই। পরে তাকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ফরিদপুরে পাঠানো হয়েছে। আশ্রয়ণের জমি-ঘর নিয়ে স্থানীয়রা এই হামলা চালায়।

এ বিষয়ে ইউএনও মো. আশিকুর রহমান চৌধুরী বলেন, ওই এলাকায় আশ্রয়ণ প্রকল্পের কাজের উদ্বোধন ছিল। এসময় স্থানীয়রা আমার ওপর হামলা চালায়। প্রাথমিকভাবে হামলাকারীদের নাম-পরিচয় জানা সম্ভব হয়নি। তবে ওখানে যারা উপস্থিত ছিলেন তারা তাদের চিনবে।

উক্ত বিষয়ে ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. কামরুল আহসান তালুকদার (পিএএ) সাংবাদিকদের বলেন, এ হামলায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

এদিকে উক্ত ন্যাক্কারজনক ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে দোষী ব্যক্তিদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছে মধুখালি উপজেলার সচেতন মহল সহ ফরিদপুর জেলার শান্তিপ্রিয় জনগণ।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:

সর্বাধিক পঠিত